বড়শিতে এক মাছ ধরেই ২ লাখে বিক্রি, ভাগ্য বদলে গেল মজিদের

কক্সবাজারের টেকনাফে বড়শিতে ধরা একটি মাছ বিক্রি করেই লাখপতি হয়ে গেছেন মজিদ আহমেদ। তার বড়শীতে ধরা পড়েছে ২৮ কেজি ওজনের একটি কালো পোয়া।

মাছটি বিক্রি হয়েছে ১ লাখ ৯১ হাজার টাকায়। রোববার শাহপরীরদ্বীপ পশ্চিমপাড়া সংলগ্ন বঙ্গোপসাগরে মজিদ আহমেদের বড়শিতে মাছটি ধরা পড়ে। মাছটি লম্বা প্রায় সাড়ে তিন ফুট।

মজিদ আহমদ জানান, রোববার সকালে নৌকা নিয়ে তিনিসহ তিনজন শাহপরীর দ্বীপ পশ্চিমপাড়া সংলগ্ন বঙ্গোপসাগরের মাছ শি’কারে যান। ওই সময় তারা বড়শি ফে’লে অপেক্ষায় থাকেন।

একপর্যায়ে বড়শিতে ৭ কেজি ওজনের একটি পোয়া মাছ ধরা পড়ে। এর কিছুক্ষণ পর বড় পোয়া মাছটি ধরা পড়ে। মাছটি নিয়ে তীরে আসার সাথে সাথে বড়শিতে বড় মাছ ধরা পড়ার খবর ছড়িয়ে পড়ে। পশ্চিমপাড়া মৎস্য ঘাঁটে উৎসুক জনতা মাছটি দেখতে ভিড় জমান।

পরে ইসমাইল নামে একজন মৎস্য ব্যবসায়ী মাছটি কিনে নেন। মজিদ জানান, তার বড়শিতে প্রায়ই বড় পোয়া ধরা

পড়ে। গতবছর প্রায় বিশ কেজি ওজনের একটি পোয়া মাছে ৮০ হাজার টাকা পেয়েছিলেন। এছাড়া এইবছর বড় আকারের আরো বেশ কিছু সামুদ্রিক মাছ ধরেছেন যা বিক্রি করে ৪-৫ লাখ টাকা আয় হয়েছে।

মাছ ক্রেতা মোহাম্মদ ইসমাইল বলেন, মাছটি কক্সবাজার ফিশারি ঘাটে পাঠানো হয়েছে। সেখান থেকে চট্টগ্রাম ফিশারি

ঘাটে পাঠানো হবে। ফিশারি ঘাটে বিদেশে পোয়া মাছ রপ্তানি করে এমন কয়েকজন বড় ব্যবসায়ী আছেন। মূলত তারা এধরনের মাছ কিনে হংকং, সিংগাপুর সহ বিভিন্ন জায়গায় রপ্তানী করে থাকেন।

Check Also

প্রথম সন্তান কন্যা হওয়ায় গৃহবধূকে তাড়িয়ে দিলো স্বামীর পরিবার

এক বছরের সংসার জীবনে ছেলে সন্তান উপহার দিতে পারেনি। তাই গাইবান্ধার সাদুল্লাপুরে রোকসানা খাতুন (২৩) …