প্রবাসীরা দেশে আসলেই বাসায় ডাকতেন নায়িকা রোমানা

সৌদি আরব প্রবাসী কামরুল ই’সলাম জুয়েলের দা’য়ের করা মামলায় মডেল ও রান আউট সিনেমার নায়িকা রোমানা ই’সলাম স্বর্ণাসহ (৪০) তার মা ও স’ন্তানকে জি’জ্ঞাসাবা’দের জন্য ত’দন্ত কর্মক’র্তার রি’মান্ড আবেদন নামঞ্জুর

করেছেন আ’দালত। রি’মান্ডের পরিবর্তে তাদের একদিনের জন্য জে’লগেটে জি’জ্ঞেসাবা’দ করার অ’নুমতি দেওয়া হয়েছে। শুক্রবার বিকেলে ঢাকা মে’ট্রোপলিটন ম্যা’জিস্ট্রেট বেগম মাহমুদা আক্তার এ আ’দেশ দেন। তিনি আগামী তিন দিনের মধ্যে যেকোনো একদিন আ’সামিদের জি’জ্ঞাসাবা’দ করতে বলেন।

জানাগেছে নায়িকা রোমানা মডেল পরিচয়ে ফেসবুকে প্রে;ম করতেন প্রবাসীদের স’ঙ্গে। কখনো স্বামীর স’ঙ্গে ডিভোর্স আবার সংসারের আর্থিক সংক’টসহ নানা কারণ দেখিয়ে নিতেন টাকা। পরে করতেন বিয়েও।কৌশলে অন্তর’ঙ্গ মুহূর্তের

ছবি ও ভিডিও ধারণ করে তা ছড়িয়ে দেওয়ার ভ’য় দেখিয়ে লিখে নিতেন জায়গা-জমিও। এমনই একটি প্র’তারক পরিবার সন্ধান পেয়েছে পু’লিশ। প্র’তারিতদের দা’বি, ২৮ জনের সাথে এভাবে প্র’তারণা করে বিয়ে করে রোমানা হাতিয়ে নিয়েছেন কোটি কোটি টাকা। পু’লিশ বলছে, এই পরিবারের প্রতিটি সদস্য প্রাথমিক জি’জ্ঞাসাবা’দে এ কাজে জ’ড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে।

রোমানা নিজেকে কখনো মডেল, কখনো অভিনেত্রী পরিচয়‌ দিতেন। খুলতেন ভিন্ন ভিন্ন ফেসবুক আইডি‌। আপলোড করতেন রগরগে (আ’পত্তিকর) সব ছবি। এরপর প্রবাসীদের টা’র্গেট করে ফ্রেন্ড বানিয়ে গড়ে তুলতেন প্রে;মের স’ম্পর্ক।

তারপর কখনো স্বামীর সাথে বি’চ্ছেদ আবার কখনো স্বামীহী’ন সংসারে আর্থিক অনটনের কথা বলে প্রবাসী ওইসব প্রে;মিকদের কাছ থেকে নিতেন টাকা। ঠিক একইভাবে কখনো ফ্ল্যাট কেনা আবার কখনো গাড়ি কেনার নাম করে রোমানা সৌদি প্রবাসী কামরুল ই’সলাম জুয়েলের কাছ থেকে এক বছরে বিভিন্ন সময়ে নেন আড়াই কোটি টাকা।

প্র’তারিত হওয়া প্রবাসী কামরুল ই’সলাম জুয়েল বলেন, সে আমার সাথে প্রথমে ভাল স’ম্পর্কে করে। এরপর লালমাটিয়ায় ফ্ল্যাট কেনার নাম করে ১ কোটি ৯০ লাখ টাকা নেয়। আমি দেশে আসার পর আমাকে বাসায় ডাকে। আমি

যাই। গেলে তারা আমাকে কিছুটা একটা খাইয়ে অ’জ্ঞান করে ফেলে। এরপর আমার খা’রাপ ছবি তুলে নেয় ও আমার থেকে স্ট্যাম্পে সাইন নিয়ে নেয়। এভাবেই সে আমাকে জো’র করে বিয়ে করে। তার মোবাইল, ঘড়ি, গাড়ি আর সবই আমার কিনে দেওয়া। আমাকে ডিভোর্স দিয়েছে বললেও তা মি’থ্যা। তাই আমি আ’ইনের আশ্রয় নিয়েছি।

এরপর বিয়ের জন্য দেশে এনে জুয়েলকে কিছুদিন নিজের বাসায় আ’টকে রাখেন রোমানা। করেন বিয়েও। এসব শোনার পর নিজের আগের স্ত্রীর সাথে জুয়েলের ছাড়াছাড়িও হয়। রোমানা হঠাতই একদিন সুযোগ বুঝে ধারণ করেন জুয়েলের

অ’ন্তরঙ্গ নানা মুহূর্তের ছবি।এরপর ছবি ও ভিডিও ছ’ড়িয়ে দেওয়ার ভ’য় দেখিয়ে রোমানা জো’র করে স্ট্যাম্পে জুয়েলের সাক্ষর রেখে জায়গা জমি হাতিয়ে নেন। এরপর রোমানাও জুয়েলকে ডিভোর্স দেন। এভাবেই বিয়ের নামে প্র’তারণা করে রোমানা ঢাকা, কুমিল্লা, চট্রগ্রাম, সিলেট ও বিভিন্ন জেলার অন্তত ২৮ জন প্রবাসীর কাছ থেকে কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন প্র’তারিতরা।

আর পু’লিশ বলছে, এই পরিবারের প্রতিটি সদস্যই বিপরীত লি’ঙ্গের সাথে একই প্রক্রিয়ার প্রে;ম ও বিয়ের সম্পর্কের

অভিনয় করে বিপুল অর্থ হাতিয়ে নিয়েছে।এ প্রস’ঙ্গে ডিএমপির ডিসি হারুন অর রশীদ বলেন, রোমানা, তার মা, তার ভাই ও ভাইয়ের বউ ও রোমানার ছেলে তারা সবাই এই ব্যক্তির কাছ থেকে টাকা নিয়েছে। তিনি বিদেশ থেকে আসার পর

বাসায় নিয়ে উল’ঙ্গ করে তার ছবি তুলে তারা। এরপর টাকা দা’বি করে বসে। টাকা না দিলে সেই ছবি ফেসবুকে ছ’ড়িয়ে

দেওয়ার হু’মকি দেয়। এ ব্যাপারে রাজধানীর মোহাম্ম’দপুর থা’নায় মা’মলা দা’য়ের করেছেন ভু’ক্তভো’গীরা। এ ঘ’টনায় প্র’তারক পরিবারের পাঁচ সদস্যকে আ’টক করেছে পু’লিশ।

Check Also

যে কারণে ইমামের সঙ্গে প;রকীয়া করেন আসমা!

ঢাকার দক্ষিণখানের সরদারবাড়ি জামে মসজিদের ইমাম মাওলানা আবদুর রহমানের (৫৪) সঙ্গে পরকীয়ায় জড়িয়েছিলেন নিহত আজহারের …